চেতনাতন্ত্রে স্বাগতম

ChetonaTontri2

শাফকাত রাব্বী অনীকঃ

চেতনাতন্ত্রী বাংলাদেশে আজ প্রথম নির্বাচন হচ্ছে। গণপ্রজাতন্ত্রী থেকে চেতনাতন্ত্রী হবার আগে বাংলাদেশ স্বৈরতন্ত্র, একনায়কতন্ত্র, গণতন্ত্র, সুশিলতন্ত্র, সব সিস্টেমই একটু একটু করে পরখ করেছে। তুলনামূলকভাবে চেতনাতন্ত্র একটি নতুন সিস্টেম। বই পুস্তক, গবেষণা, কিংবা আলোচনা খুব বেশী নেই চেতনাতন্ত্রের উপর। এখন জরুরী ভিত্তিতে ইন্টেলেকচুয়াল কোন ব্যাকআপ লাগলে, কিছু ব্লগার ও চটি লেখকের বাইরে, একমাত্র ভরসা একজন বিশিষ্ঠ ফাপরবাজ। একারনে আগামীর দিনগুলো কেমন হবে তাঁর কোন থিওরেটিকাল এনালাইসিস করার মতো পলিটিকাল সায়েন্সের তেমন কোন থিউরি নেই।

গণতন্ত্র বাংলাদেশে কখনও প্রাতিষ্ঠানিক রূপ পায় নাই। প্রধান দুই দল ও নেতৃত্ব গণতন্ত্র ফেইল করার জন্যে দায়ি। তবে গণতন্ত্র না পেলেও, দেশের মানুষ ভোটতন্ত্র পেয়েছিল। ভোটতন্ত্র গণতন্ত্রের চাইতে খারাপ, কিন্তু স্বৈরতন্ত্র থেকে ভালো ছিল। কেননা ভোটতন্ত্রে অন্তত ৫ বছর পর পর সরকার বদলানো যেত। একারনেই দেশের মানুষ গণতন্ত্র না পেলেও, ভোটতন্ত্রকে বিপুল ভাবে ভালোবেসেছিল।

তবে এই ভোটতন্ত্রেও পোষাচ্ছিল না দেশের চেতনাময় জনগণের। কেননা ভোটতন্ত্রে চেতনাময়দের একটি ভোট এবং চেতনাহীনদের একটি ভোট সমান সমান। কিন্তু এতো বড় বাস্তবতা মেনে নিতে পারার মতো উদারতা চেতনার ফেরিওয়ালারা চেতনাময় জনগণকে শেখাতে পারেনি। তারা খুশী হতো যদি চেতনাময়ের একভোট চেতনাহীনের ২টি কিংবা ৩ ভোটের সমান হতো। আমেরিকায় একসময় নাকি কালো মানুষদের ২ ভোট সাদা মানুষের ১ ভোটের সমান করার প্ল্যান করা হয়েছিল। ঠিক তেমন কিছু একটা পেলে চেতনাময় জনগণ হয়তো ভোটতন্ত্র মেনে নিত।

চেতনাতন্ত্র সিস্টেম হিসেবে আমেরিকান সেই কালোদের সাথে বৈষম্যেমূলক সিস্টেমের থেকেও এক কাঠি উপরে। এই অদ্ভুত সিস্টেমে শুধু চেতনাময়রাই ভোট দেয়, ক্যান্ডিডেট দেয়। আর বাকীরা বালুর ট্রাকে আটকা পরে, কিংবা ভাগ্য বেশী খারাপ থাকলে গুলি খেয়ে কিংবা অন্যকোন উপায়ে মরে।

চেতনাতন্ত্রে আশরাফ-আতরাফ, ব্রাক্ষ্মন-নম্র-শুদ্র ভেদাভেদও থাকবে। চেতনাময়রা উচ্চ বংশীয় কিংবা উচ্চ বর্ণের হিসেবে রাজনৈতিক, নাগরিক সুযোগ সুবিধা পাবে। পুলিশ চেতনাময়দের মিছিলে লাঠি চার্জ করবে, আর চেতনাহীনদের গুলি। এর বাইরে টাকা কড়ি, চাকরি বাকরি, নারী, গাড়ি সব কিছুতে ভেদাভেদতো থাকছেই।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s